You are here
Home > news >

‘নির্দেশনার পরেও অনলাইনে ক্লাস শুরু না করা প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন অমান্য করার শামিল’

দেশে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে গত ১৭ মার্চ থেকে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং কোচিং বন্ধ রয়েছে। এ অবস্থায় সংসদ টিভিতে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ক্লাস চলছে। গত এপ্রিল মাসের মাঝামাঝি সব কলেজকে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি ব্যবহার করে স্নাতক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষার্থীদের অনলাইনে ক্লাস নেয়ার নির্দেশ দিয়েছিল মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর। কিন্তু সে নির্দেশনা মানেনি অনেক কলেজ। তাই সব কলেজের শিক্ষার্থীদের অনলাইনে ক্লাস করা নিশ্চিত করতে কঠোর অবস্থানে যাচ্ছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর।

অধিদপ্তর বলছে, নির্দেশনা দেয়ার পরেও অনলাইনে ক্লাস শুরু না করা প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন বিরোধী। তাই সব কলেজকে আবারও অনলাইনে ক্লাস নেয়ার আহ্বান জানিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর। আর ক্লাসগুলো নির্ধারিত জিমেইল আইডিতে আপলোড করতে বলা হয়েছে। নির্বাচিত ক্লাসগুলো শিক্ষা অধিদপ্তরের ইউটিউব চ্যানেলে প্রচারের করা হবে।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এসব তথ্য জানিয়ে সব সরকারি কলেজে চিঠি পাঠানো হয়েছে। 

চিঠিতে বলা হয়েছে, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে অনলাইনে ক্লাস গ্রহণের জন্য বিজ্ঞপ্তি দেয়া হয়েছিল। কিন্তু অনেক কলেজ আজও তা অনুসরণ করেনি। যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন বিরোধী। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে শিক্ষার্থীদের অনলাইনে ক্লাস নেয়ার উদ্যোগী ভূমিকা গ্রহণ একটি গুরুত্বপূর্ণ দিক। ফলে শিক্ষার্থীরা যাতে ক্ষতিগ্রস্থ না হয় সেজন্য প্রচলিত কারিকুলাম ও সিলেবাস অনুযায়ী সংশ্লিষ্ট বিষয়ের অনলাইনে ক্লাস গ্রহণের জন্য পুনরায় আহ্বান জানানো হলো।

চিঠিতে আরও বলা হয়েছে, অনলাইনে নেয়া ক্লাসগুলো প্রতিষ্ঠান প্রধানরা যচাই বাছাই করে (ddgovcollege1@gmail.com) আইডিতে আপলোড করবেন। আপলোড করা ক্লাসগুলো মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করবে। এতে করে দেশের সকল প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা উপকৃত হবে। প্রতিষ্ঠান প্রধানরা অনলাইনে ক্লাস গ্রহণকারী সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের বিভাগীয় প্রধান ও বিভাগের শিক্ষকদের সহযোগিতা করবেন। 

অনলাইনে ক্লাস নেয়ার জন্য কয়েকটি নির্দেশনা অনুসরণ করতে বলা হয়েছে কলেজগুলোকে। সেগুলো হলো, কোনো প্রকার ধর্মীয় উস্কানিমূলক, সাম্প্রদায়িক মনোভাবাপন্ন সংলাপ, ছবি বা কনটেন্ট ব্যবহার করা যাবে না। মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা বিরোধী কোনো কর্মকাণ্ড প্রচারণা, উপস্থাপন করা যাবে না। সরকার ও দেশের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড বিরোধী কোনো বক্তব্য, সংলাপ, সংলাপ, ছবি, কনটেন্টে ব্যবহার করা যাবে না।

এসব নির্দেশনা অনুসরণ না করা হলে প্রতিষ্ঠান প্রধান এবং অনলাইনে ক্লাস নেয়া শিক্ষকের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও বলা হয়েছে চিঠিতে। একই সাথে আমি বেশ কয়েকটি সরকারি কলেজকে উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের ২৪টি ক্লাস তৈরি করে আপলোড দেয়ার নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর।

দৈনিক শিক্ষাডটকমের পাঠকদের জন্য চিঠিটি তুলে ধরা হলো। 

 

 

 
 

 

 

সংসদ টিভির সকল ক্লাসের ভিডিও গুলো সরাসরি আমাদের লেখাপড়াবিডি সাইটে নিয়মিত দেয়া হয়। সকল ক্লাসের ভিডিওগুলো দেখতে পারবেন আমাদের ওয়েসাইটে। নিচের লিংকে ক্লিক করে আপনার ক্লাসগুলো দেখে নিন। এছাড়াও যারা পুর্বের ক্লাসগুলো মিস করেছেন তারাও আমাদের এখান থেকে সেই মিস করা ক্লাসগুলো দেখতে পারবেন।

সংসদ টিভির মাধ্যমিকের “আমার ঘরে আমার স্কুল” কার্যক্রম এর নতুন রুটিন ও লাইভ ক্লাস দেখুন এখানে

সংসদ টিভিতে প্রাথমিকের “ঘরে বসে শিখি” কার্যক্রম এর নতুন সময়সূচী ও লাইভ ক্লাস দেখুন এখানে

সংসদ টিভির “আমার ঘরে আমার মাদ্রাসা” কর্মসূচির নতুন ক্লাস রুটিন ও সরাসরি সম্প্রচার দেখুন

সংসদ টিভির ঘরে বসে কারিগরি শিক্ষা কার্যক্রমের রুটিন ও লাইভ ক্লাস দেখুন এখানে

 

resultexplore
😎😎Don’t try to be like me. Try to be like yourself. Try to be very good at being yourself.😎😎

Leave a Reply

Top